Logo
শিরোনাম :
ভারত থেকে দেড় বছর পর বেনাপোল বর্ডার দিয়ে দেশে ফিরল ৪ বাংলাদেশি যুবতী আটঘরিয়ায় বেতন স্কেল আপগ্রেডেশনসহ বিভিণ্ন দাবি আদায়ের লক্ষে কর্মবিরতি চাঁপাইনবাবগঞ্জে হয়রানির অভিযোগে বিজিবি ও ইউপি সদস্যের বিরুদ্ধে সংবাদ সম্মেলন ঝিকরগাছা জোনাল অফিস কমপ্লেক্সে’র শুভ উদ্বোধন….ডা. নাসির উদ্দিন এমপি চিলমারীতে বাল্যবিবাহ প্রতিরোধে ইউনিয়ন পর্যায়ে অধ-বার্ষিকী সমন্বয় সভা অনুষ্ঠিত নাইক্ষ্যংছড়িতে ৭হাজার ৭শ ৭০ পিস ইয়াবাসহ ২ মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার আটঘরিয়ার মাজপাড়ায় মিনি নাইট ক্রিকেট টুর্নামেন্টের ফাইনাল খেলা অনুষ্ঠিত খুলনা দাকোপে অক্সিজেন সিলিন্ডার ব্যাংক ক্যানুলা প্রকল্পের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন বাকেরগঞ্জ পৌর নির্বাচনে শিউলিকে পুনরায় নারী কাউন্সিলর হিসেবে পেতে চায় এলাকাবাসী কলারোয়ায় মুক্তিযোদ্ধার ধর্ষিতা স্ত্রীকে দেখতে আসলেন অতিরিক্ত অ্যাটর্নি জেনারেল জেনারেল এসএম মুনীর

শহীদ আবদুর রব সেরনিয়াবাতের নাতি ঢাকা সিটির মেয়র প্রার্থী তাপস

শাহিন হাওলাদার / স্টাফ রিপোর্টার / সম্প্রতি ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে নমিনেশন পেয়েছেন শেখ ফজলে নূর তাপস। বাংলাদেশ আওয়ামী যুব লীগের প্রতিষ্ঠাতা ও বঙ্গবন্ধুর ভাগ্নে শেখ ফজলুল হক মনি ও বেগম আরজু মণির কনিষ্ঠ পুত্র।

কৃষককুলের নয়নমণি শহীদ আবদুর রব সেরনিয়াবাতের কন্যা বেগম আরজু মণি। সেই সূত্রে শেখ ফজলে নূর তাপসের নানাবাড়ি বরিশালেই।

তাপস মেয়র পদে দলীয় মনোনয়ন পাওয়ার সাথে সাথে সৌজন্য সাক্ষাত করেছেন তার মামা, পার্বত্য চট্রগ্রাম শান্তিচুক্তি বাস্তবায়ন কমিটির আহবায়ক (মন্ত্রী) আলহাজ্ব আবুল হাসানাত আবদুল্লাহ্ এমপি এর সাথে।

অন্যদিকে মনোনয়ন পাওয়ায় তার মামাতো ভাই ও বরিশাল সিটি কর্পোরেশনের মেয়র সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহ তার অফিসিয়াল ফেইসবুক পেইজে তাকে অভিনন্দন জানিয়ে পোষ্ট শেয়ার করেছেন।
শেখ ফজলে নূর তাপস মনোনয়ন পাওয়ায় তার মামাতো ভাই ও বরিশাল সিটি কর্পোরেশনের মেয়র সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহ তার অফিসিয়াল ফেইসবুক পেইজে তাকে অভিনন্দন জানিয়ে পোষ্ট শেয়ার করেছেন।

নিউজ প্রকাশ করার পুর্ব মুহূর্ত পর্যন্ত পোষ্টে কমেন্ট এসেছে প্রায় ৫ শত। যার মধ্যে বেশীর ভাগ শুভাকাঙ্খি অভিনন্দন বার্তা দিয়ে কমেন্ট করেছেন।

সরদার রানা নামের একজন কমেন্টে লিখেছেন, ‘অভিনন্দন! আপনাদের দুই ভাইকেই অভিনন্দন’।

এ বিষয়ে রিফাত রাব্বির নামের একটি ফেইসবুক আইডি থেকে কমেন্ট দিয়ে লিখেছেন, ‘দুই ভাই মেয়র হলে রেকর্ড হইয়া যাবে’।

উল্লেখ্য,তাপস পেশায় একজন আইনজীবী, ১৯৯৭ সালে ইংল্যান্ড থেকে বার এট ল ডিগ্রী লাভ করে বাংলাদেশে আইন পেশায় প্রবেশ করেন।

তিনি বঙ্গবন্ধু হত্যা মামলায় সরকার পক্ষের আইনজীবী হিসেবে কাজ করেন। ২০০৭ সালে তৎকালীন সেনা সমর্থিত তত্ত্বাবধায়ক সরকার আওয়ামী লীগ সভানেত্রী শেখ হাসিনার বিরুদ্ধে মামলা করলে শেখ হাসিনার পক্ষে মামলা পরিচালনা করেন ব্যারিস্টার তাপস এবং সবগুলো মামলায় বিজয় লাভ করেন।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


Theme Created By ThemesWala.Com
error: Content is protected !!