Logo
শিরোনাম :
সিংড়ায় আওয়ামীলীগ মনোনিত মেয়র প্রার্থীর ইশতেহার ঘোষনা বেনাপোল মাধ্যমিক বিদ্যালয় এসএসসি- ২০০৩ ব্যাচের বার্ষিক বনভোজন অনুষ্ঠিত সাংবাদিক ইয়ারব হোসেনের মায়ের মৃত্যুতে কলারোয়া প্রেসক্লাবের শোক ও সমবেদনা বাঁশখালীতে উপকূলীয় পাবলিক লাইব্রেরির পরিচয়পত্র বিতরণ চাঁপাইনবাবগঞ্জে বাংলাদেশ প্রাথমিক শিক্ষক কল্যান সমিতির মানববন্ধন বাঁশখালীর সরল ইউনিয়নে আলালের পক্ষ থেকে শীতবস্ত্র বিতরণ ডালবুগঞ্জ ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে সোয়াইব খানের দলীয় মাননায়নপত্র ক্রয় লক্ষ্মীপুর হাজিগঞ্জ ও গৌরীপুর জেলা সড়ক ২টি আঞ্চলিক মহাসড়কে উন্নীত হতে যাচ্ছে! বাকেরগঞ্জের রঙ্গশ্রী ইউনিয়নের ৮নং ওয়ার্ডে বাবুল খানের বিকল্প নেই ঠাকুরগাঁওয়ে বিএনসিসির স্বেচ্ছাসেবা কার্যক্রম

শরীয়তপুর নড়িয়া কান্দাপাড়া গ্রামে ৮বছরের শিশু ধর্ষণকারী গ্রেফতার

মোঃ সালমান হোসনে সাগর
শরীয়তপুর জেলা প্রতিনিধি।

করোনার মহামারীতে বেড়েই চলেছে অপরাধ তারই ধারাবাহিকতায় ঘটেছে শিশু ধর্ষণ।৭ই জুন বিকাল ৪ টার সময় নড়িয়া থানাধীন কান্দাপাড়া গ্রামে বর্বরোচিত জঘন্য ঘটনা ঘটে। নড়িয়া থানার একজন দ্বিতীয় শ্রেণীতে পড়ুয়া ছাত্রী বয়স অনুমান ০৮ বছর। তাকে তার পার্শ্ববর্তী বাড়ির লম্পট যুবক মিন্টু মন্ডল (২৪)পিতা- গোপাল মন্ডল গ্রাম- কান্দাপাড়া নড়িয়া শিশুটিকে গাব ফল দেয়ার কথা বলে বাড়িতে ডেকে নিয়ে যায়। লম্পট মিন্টু মন্ডলের বাড়িতে কেউ না থাকার সুযোগে ধর্ষণকারী মিন্টু মন্ডল জোরপূর্বক অবুঝ শিশু বাচ্চা টি কে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে। পাশবিক নির্যাতনের পর সে শিশুটিকে হুমকি দেয় এই ঘটনা কাউকে জানালে তার অনেক ক্ষতি হবে। অবুঝ শিশুটি বাড়ি গিয়ে ভয়ে কাউকে ঘটনার বিষয়ে না জানালেও কিছুক্ষণের মধ্যে সে অসুস্থ হয়ে পড়ে। অসুস্থ হওয়ার পর তার মা শিশু মেয়েকে জিজ্ঞাসা করলে সে তার মায়ের নিকট ঘটনাটি বলেদেয়। হতভাগিনী শিশুর দরিদ্র মা বাবা মেয়েকে স্থানীয় এক চিকিৎসকের নিকট চিকিৎসার জন্য নিয়ে যায়। স্থানীয় চিকিৎসক মেয়েকে পরীক্ষা করে জানায় যে মেয়ের শারীরিক অবস্থা জটিল। তাকে শরীয়তপুর সদর হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পরামর্শ দেন। মেয়ের বাবা-মা ঘটনার পর মানসিকভাবে বিপর্যস্ত হয়ে পড়ায়, লোকলজ্জার ভয়ে এবং স্থানীয় দুই এক জন টাউটের পরামর্শে আত্মীয়-স্বজন এবং নড়িয়া থানা পুলিশকে না জানিয়ে গোপনে রাত অনুমান ৯.৪৫ মিনিটে শিশুটিকে শরীয়তপুর সদর হাসপাতাল চিকিৎসার জন্য নিয়ে যায়। শরীয়তপুর সদর হাসপাতালে কর্তব্যরত চিকিৎসক মেয়েটিকে প্রাথমিক পরীক্ষার পর মেয়েটির শারীরিক অবস্থা গুরুতর হওয়ায় তাকে ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পরামর্শ দেন। বিষয়টির গুরুত্ব বিবেচনা করে শরীয়তপুর হাসপাতালের কর্তব্যরত ডাক্তার বিষয়টি পালং থানাকে অবহিত করে। পালং থানা অফিসার টেলিফোনে বিষয়টি নড়িয়া থানা পুলিশকে অবহিত করলে শরীয়তপুর জেলা পুলিশ সুপারের নির্দেশে সঙ্গে সঙ্গে আসামি গ্রেপ্তারের অভিযানে নেমে পড়ে নড়িয়া থানা পুলিশ থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোঃ হাফিজুর রহমান অফিসার ইনচার্জ নড়িয়া থানা সঙ্গীয় পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) জনাব প্রবীন কুমার চক্রবর্তী , এস আই বিকাশ চন্দ্র মন্ডল, এসআই আবুল কালাম আজাদ, এস আই মানিক চন্দ্র দে, এস আই ইমরান হোসেন, এস আই দেলোয়ার হোসেন,পিএসআই রাশেদুজ্জামান সহ অভিযান শেষে গভীর রাতে ধর্ষক মিন্টু মণ্ডল কে গ্রেপ্তার করেন। গ্রেপ্তারের পর প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে ধর্ষক মিন্টু মন্ডল ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেছেন। শরীয়তপুর সদর হাসপাতালে শিশুটির শারীরিক অবস্থার অবনতি হলে অদ্য ০৮.০৬.২০২০ তারিখ শিশুটিকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হসপিটালে নিয়ে ভর্তি করা নো হয়। নড়িয়া থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা হাফিজুর রহমান সাংবাদিকদের বলেন এই ধরনের বর্বরোচিত, জঘন্য ঘটনা যে সংগঠিত করুক সে যতই শক্তিশালী হোক তাকে কোনোভাবেই ছাড় দেয়া হবে না। ধর্ষণকারী গ্রেফতার হওয়ায় নড়িয়া উপজেলা এলাকাবাসী ও সুশীল সমাজ নড়িয়া থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোঃ হাফিজুর রহমান কে সাধুবাদ জানিয়েছেন তার সাহসিকতা ও কৌশল সত্যিই প্রশংসনীয়।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


Theme Created By ThemesWala.Com
error: Content is protected !!